রাজ্যপালের অপসারণ চেয়ে রাষ্ট্রপতিকে চিঠি তৃণমূলের

ইউবিজি নিউজ ব্যুরো : বাংলায় শাসকদল এবং রাজ্যপালের মধ্যে তরজা অব্যাহত। এবার রাজ্যপালের অপসারণ দাবি করল তৃণমূল। মঙ্গলবারই রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দকে এ নিয়ে স্মারকলিপি জমা দিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস।

তৃণমূলের অভিযোগ, রাজ্যপাল সংবিধানের নিয়মকানুনকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে একের পর এক মন্তব্য করছেন। ভারতের আর কোনও রাজ্যের রাজ্যপাল এমন আচরণ করেন না। বাংলার রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়ের এ হেন আচরণকে তৃণমূল সাংবিধানিক রীতিনীতি লঙ্ঘনের সমান বলেই দাবি করেছে।

তাই জগদীপ ধনকরের অপসারণ চেয়ে তৃণমূল সাংসদ সুখেন্দুশেখর রায় চিঠি পাঠালেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দকে। স্মারকলিপিতে লেখা হয়েছে, ‘আমাদের এই মর্মে আবেদন যে, রাজ্যপাল দেশের সংবিধানকে রক্ষা এবং সংরক্ষণ করতে ব্যর্থ হয়েছেন। সুপ্রিম কোর্ট ঘোষিত আইনও তিনি লঙ্ঘন করেছেন।’ সুখেন্দুশেখর ছাড়াও এই স্মারকলিপিতে স্বাক্ষর করেছেন সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়, ডেরেক ও’ব্রায়েন এবং কাকলি ঘোষদস্তিদার।

রাজ্যপাল হয়ে বাংলায় আসার পর থেকেই বিভিন্ন বিষয়ে তৃণমূল সরকারের সঙ্গে বিরোধ বেধেছে রাজ্যপাল জগদীপ ধনকরের। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং রাজ্যপাল বিভিন্ন সময়ে একে অপরের বিরুদ্ধে বিষোদগার করেছেন। এবার রাজ্যপালের অপসারণও দাবি করে বসলেন তৃণমূল সাংসদরা।