শুভেন্দুর গড়ে বিজেপির দলীয় পতাকা ছেঁড়া ও বিজেপি কর্মীদের মারধর- হুমকির অভিযোগ উঠল তৃনমূলের বিরুদ্ধে

ইউবিজি নিউজ ব্যুরো : রাজ‍্যে বিধানসভা নির্বাচনে দিনক্ষণ ঘোষণার পরেই ফের রাজনৈতিক সংঘর্ষে উত্তপ্ত পূর্ব মেদিনীপুর। এবার পটাশপুর ২নং ব্লকের পঁচেট অঞ্চলের পুরষত্তোমপুর এলাকায় বিজেপির দলীয় পতকা ছেঁড়া ও বিজেপি কর্মীদের মারধরের হুমকির অভিযোগ উঠল তৃনমূলের বিরুদ্ধে। নির্বাচন কমিশনের দ্বারস্থ বিজেপি নেতৃত্ব।

বিজেপির অভিযোগ, গতকাল শাসকদলের প্রার্থী ঘোষণা হওয়ার পর রাতের অন্ধকারে পঁচেট অঞ্চলের উপপ্রধান প্রনব কর এর নেতৃত্বে তৃণমূলের কর্মীরা ওই এলাকায় টাঙানো থাকা বিজেপির সমস্ত দলীয় পতাকা ছিঁড়ে দেয়।

পাশাপাশি কর্মীদের বাড়িতে গিয়ে মারধরের হুমকি দেয়।জেলা সভাপতি অনুপ চক্রবর্তী বলেন , নির্বাচন এগিয়ে আসতেই পটাশপুর এলাকায় তৃণমূলের পায়ের তলার মাটি সরে গিয়েছে । তাই তারা বিজেপির দলীয় পতাকা ফেস্টুন ছিড়ে দিচ্ছে। এতে মানুষ বুঝে গিয়েছে রাতের অন্ধকারে কারা দুষ্কৃতীদের কাজ করছে। এই দলের আর কোনো ঐহিত্য নেই । পরিকল্পিভাবে এলাকায় সন্ত্রাসের পরিবেশ তৈরি করছে তারা। যা ছিল তা সবই শেষ হয়ে গিয়েছে। মানুষ এর যোগ্য জবাব দেবে।

যদিও বিজেপির এই সমস্ত অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে পটাশপুর ২ ব্লক তৃনমূল কংগ্রেসের সাধারন সম্পাদক তথা পঁচেট অঞ্চলের উপপ্রধান প্রনব কর বলেন , প্রত‍্যেক বছর নির্বাচন এলেই এরা সকলে আমার নামে বিভিন্ন অভিযোগ তোলেন। বিজেপি দলের কোনো সাংগঠনিক ক্ষমতা নেই। বিজেপির গোষ্ঠী কোন্দল এর ফলে এই ঘটনা । তারা নিজেরাই দলীয় পতাকা , ফেস্টুন ছিঁড়ে তৃণমূল দলের অপপ্রচারের চেষ্টা করছে। তাছাড়া সাধারণ মানুষ তাদের সঙ্গে নেই , তাই এই সমস্ত অভিযোগ’কে হাতিয়ার করে তারা প্রচারের আলোতে আসতে চাইছে । তবে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে নির্বাচন কমিশনের দ্বারস্থ হছে বিজেপি বলে জানা যাচ্ছে।