Ad
রাজ্য

৫টা থেকে ৮টা পর্যন্ত খোলা থাকবে হোটেল-রেস্তোরাঁ, ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

এই বিজ্ঞাপনের পরে আরও খবর রয়েছে

কলকাতা, ৩ জুনঃ করোনার স্বাস্থ্যবিধি মেনে চালানো যেতে পারে হোটেল, রেস্তোরাঁ, বৃহস্পতিবার এমনটাই জানালেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন নবান্নে বণিকসভার সঙ্গে বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী জানান, মিষ্টির দোকান খোলা থাকছে সকাল ১০টা থেকে ৫টা পর্যন্ত। করোনা সংক্রান্ত স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা রাখা যেতে পারে রেস্তোরাঁও।

বিকেল ৫ টা থেকে ৮টা পর্যন্ত রেস্তোরাঁ খোলা রাখা যেতে পারে। এক্ষেত্রে কর্মীদের টিকা দিতে হবে বাধ্যতামূলকভাবে। মানতে হবে করোনা সম্পর্কিত স্বাস্থ্যবিধি। আপাতত ৫০ শতাংশ কর্মী নিয়ে রেস্তোরাঁ খুলে রাখার কথা জানান মুখ্যমন্ত্রী।

Ad

এদিন বণিকসভার বৈঠকে টিকাকরণে বিশেষ জোর দেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, “রাজ্যে ব্যবসায়ীদের কথা ভেবে লকডাউন বা কার্ফু জারি করিনি। বাজার পুরোপুরি বন্ধ করিনি। এবার থেকে রাজ্যের বাজার হাট নিয়মিত স্যানিটাইজ করা হবে। হোটেল রেস্তোরাঁর কাজ অনলাইনে চালান। কর্মীদের টিকা দিয়ে এবং করোনা সম্পর্কিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা যেতে পারে রেস্তোরাঁ”।

বিকেল ৫টা ৮টা পর্যন্ত খোলা যাবে রেস্তোরাঁ। ১৬ জুন থেকে শপিংমল খোলার বিষয়ে চিন্তাভাবনা করছে প্রশাসন। তবে এক্ষেত্রে মাত্র ২৫ শতাংশ গ্রাহকদের নিয়ে খোলা যাবে মল। যাতে কোনওভাবে ভিড় না হয়, সেদিকেও বিশেষ নজর দিতে হবে। এতদিন পর্যন্ত বেলা ১২টা থেকে ৩টে পর্যন্ত খুচরো দোকান খোলার অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। এবার সেই সময় বাড়িয়ে ১২ টা থেকে ৪ টা করা হয়েছে”।

পাশাপাশি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আরও বলেন, “সকালে ১০ শতাংশ কর্মী নিয়ে কাজ করতে পারবেন তথ্য প্রযুক্তি সংস্থার কর্মীরা। দুটি শিফটে কাজ করতে পারবেন তাঁরা। ৮টা থেকে ১২টা এবং ১২ টা থেকে ৫টা”।

আরও পড়ুন