Ad
রাজ্য

বাইক আরোহীদের আর দাপট দেখাতে পারবে না সিভিক ভলেন্টিয়ার! জারি নয়া নির্দেশনা

এই বিজ্ঞাপনের পরে আরও খবর রয়েছে

ইউবিজি নিউজ ডেস্ক : বাইকের কাগজ, লাইসেন্স সবই ঠিক আছে কিন্তু তবুও নাকা চেকিং পাল্লায় পড়ে অহেতুক সময় নষ্ট হয় বহু মানুষের। আর বর্তমানে সিভিক ভলেন্টিয়ার দের পাল্লায় পড়ে বহু সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছেন যাত্রীরা।

অনেক সময় হেলমেট, কাগজ পত্র সঠিক থাকা সত্ত্বেও অহেতুক সময় নষ্ট হয় লাইনে বাঁ রাস্তায় দাঁড়িয়ে। অনেকের অভিযোগ সব কিছু ঠিক থাকা সত্ত্বেও কেন দাঁড়িয়ে থাকতে হবে। আর সময়ের মুল্য সত্যিই মূল্যবান তাই সেদিকে নজর দিল লালবাজার পুলিশ। জারি হল নয়া নির্দেশনা।

Ad

সর্বভারতীয় একটি সংবাদ মাধ্যমের খবর অনুযায়ী জানা যাচ্ছে, এবার থেকে শুধুমাত্র সুরক্ষার জন্য নাকা চেকিং করতে পারবে সিভিক ভলেন্টিয়ার। কোনোরকম কাগজপত্র দেখার অনুমোদন নেই তাঁদের।

সম্প্রতি লালবাজারের তরফ থেকে ট্রাফিক গার্ড ওসি এবং এওসিদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, ‘যে পুলিশকর্মীদের নথিপত্র পরীক্ষার অনুমোদন নেই, তাঁদের সেই সব দায়িত্ব দেওয়া যাবে না।’

আসলে অনেক সময় সিভিক ভলেন্টিয়াররা বাড়াবাড়ি করে যাত্রীদের সঙ্গে। আর সে বিষয়ে বহু অভিযোগ উঠে এসেছে। তাই এই সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হল লালবাজার পুলিশ।

পাশাপাশি জানানো হয়েছে কেবলমাত্র সাব-ইন্সপেক্টর অথবা সার্জেন্টরা শুধুমাত্র গাড়ি বা বাইকের কাগজপত্র চেক করতে পারবেন। আর যদি কোনও সিভিক ভলেন্টিয়ার কাগজপত্র দেখেন তাহলে তাঁর অভিযোগ করা যাবে উপর মহলে। তারপর তাঁর কড়া ব্যবস্থা নেবে প্রশাসন।

আরও পড়ুন