Ad
রাজ্য

এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠলো স্থানীয় এক ব্যাক্তির বিরুদ্ধে

এই বিজ্ঞাপনের পরে আরও খবর রয়েছে

নিজস্ব সংবাদদাতা, রায়গঞ্জ : এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠলো স্থানীয় এক ব্যাক্তির বিরুদ্ধে। এই ঘটনায় এলাকায় ব্যাপার চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পরে। ঘটনাটি ঘটেছে রায়গঞ্জ থানার রামপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের আদিয়ার গ্রামের বটতলা এলাকায়। গৃহবধূর ওই ব্যাক্তির বিরুদ্ধে রায়গঞ্জ মহিলা থানায় অভিযোগ দায়ের করে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

পরিবারসূত্রে জানা গিয়েছে, রায়গঞ্জ থানার রামপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের আদিয়ার গ্রামের বটতলা এলাকার বাসিন্দা সেলোদেবী সিং তার দুই ছেলেকে নিয়ে থাকতেন। ওই গৃহবধুর স্বামী মহেন্দর সিং দিল্লীতে শ্রমিক কাজ করতে গিয়েছে প্রায় এক বছর আগে।

Ad

ওই গৃহবধুর অভিযোগ, গতকাল রাতে আমার ছেলেরা বিয়ে বাড়িতে গিয়েছিল। ঘরে লাইট জ্বালিয়ে শুয়ে ছিলাম। রাত সাড়ে ১২ টার নাগাদ স্থানীয় সিকিন্দর সিং নামে এক ব্যাক্তি সেলোদেবীর ঘরে ঢুকে পরে ধর্ষন করে সেলোদেবীর মোবাইল ফোন নিয়ে পালিয়ে যায়। এই ঘটনায় এলাকায় ব্যাপার চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পরে।

বৃহস্পতিবার সকালে সেলোদেবী ও স্থানীয় বাসিন্দারা সিকিন্দরের বাড়ি গেলে উল্টো সিকিন্দরের পরিবারের সদস্য সেলোদেবীকে মারধোর করে। সেলোদেবী সিকিন্দর সিং এর বিরুদ্ধে রায়গঞ্জ মহিলা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

সেলোদেবী জানিয়েছেন, সিকিন্দর সিং আমার ঘরে ঢুকে ধর্ষন করে পালিয়ে যায়। এটার বিচার চাইতে গেলে উল্টো আমাদের মারধোর করে সিকিন্দরের পরিবারের সদস্যরা। রায়গঞ্জ মহিলা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছি। আমি সিকিন্দর সিং এর উপযুক্ত শান্তি চাই বলে জানান সেলোদেবী।

অন্যদিকে সেলোদেবী ননদ সেলো মোহাতো জানিয়েছেন, সিকিন্দর সিং আমার বৌদিকে ধর্ষণ করে তার মোবাইল নিয়ে পালিয়ে যায়। পাশাপাশি আমার বৌদিকে মেরে ফেলার হুমকিও দেয় সিকিন্দর সিং। তিনি আরও বলে, আজকে আমার বৌদির সাথে হয়েছে কালকে যদি অন্য কোন বৌয়ের সাথে এধরণের ঘটনা না ঘটে তার জন্য সিকিন্দর সিং উপযুক্ত শান্তি দাবি জানানো হচ্ছে বলে জানান সেলোদেবী ননদ সেলো মোহন্ত।

অপরদিকে সিকিন্দর সিং এর ছেলে রাজেশ সিং জানিয়েছেন, বাবার উপর উঠা অভিযোগ সম্পর্নটাই মিথ্যা। বাবাকে ফাঁসানো হচ্ছে বলে জানান রাজেশ।

আরও পড়ুন