বিএসএফ জওয়ানের রহস্য মৃত্যুকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য

ইউবিজি নিউজ :-এক বিএসএফ জওয়ানের রহস্যজনক মৃত্যুকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে উত্তর দিনাজপুর জেলার চোপড়া থানার দাসপাড়া গ্রাম পঞ্চায়েতের ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তবর্তী কেসিগছ গ্রামে।

 এলাকার একটি চা বাগানের ভেতরে মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখা যায় বিএসএফ এর ৯৪ নম্বর ব্যাটালিয়নের কর্মরত জওয়ান কেদারনাথ হাঁসদার ( ৪৫) । পুলিশ ও বিএসএফ এর প্রাথমিক অনুমান নিজের স্বয়ংক্রিয় রাইফেল দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন ওই বিএসএফ জওয়ান।

 বিএসএফ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। চোপড়া থানার পুলিশ মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালের পুলিশ মর্গে পাঠানোর পাশাপাশি ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, মেদিনীপুরের বাসিন্দা বিএসএফ জওয়ান কেদারনাথ হাঁসদা উত্তর দিনাজপুর জেলার চোপড়া থানার দাসপাড়া গ্রাম পঞ্চায়েতের ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত বিএসএফ এর ৯৪ নম্বর ব্যাটালিয়নের কে সি গছ সীমান্তচৌকিতে কর্মরত ছিলেন।

 শুক্রবার রাতে সীমান্তে প্রহরায় ছিলেন তিনি। শনিবার ভোর চারটে নাগাদ থেকে বিএসএফ জওয়ান কেদারনাথের সাথে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।তাঁর লোকেশন পাওয়া যাচ্ছেনা।

কিছুক্ষন পরেই গুলির আওয়াজ পাওয়া যায়। এরপর সীমান্ত চৌকির ইনচার্জ দুজন জওয়ানকে কেদারনাথের খোঁজে পাঠানো হলে জওয়ানেরা সীমান্তের পাশে একটি চা বাগানের ভেতরে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করেন জওয়ান কেদারনাথ হাঁসদাকে।

তাঁর গলার উপরে থুতনির নীচে তিনটে গুলির চিহ্ন মিলেছে। মৃত বিএসএফ জওয়ান কেদারনাথ হাঁসদার পাশেই ওয়াকিটকি, টর্চ লাইট এবং তাঁর বুকের উপর স্বয়ংক্রিয় রাইফেল উদ্ধার করে বিএসএফ। খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন বিএসএফ এর উর্দ্ধতন কর্তারা। খবর দেওয়া হয় চোপড়া থানার পুলিশকেও।

 পুলিশ ও বিএসএফ কর্তাদের প্রাথমিক অনুমান নিজের স্বয়ংক্রিয় রাইফেল থেকে গুলি চালিয়ে আত্মহত্যা করেছেন মৃত বিএসএফ জওয়ান কেদারনাথ হাঁসদা। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে বিএসএফ ও চোপড়া থানার পুলিশ।