লাগাতার বৃষ্টিতে নদী গর্ভে চলে যাচ্ছে চাষের জমি, আশঙ্কায় এলাকাবন্দী হাজার দশেক মানুষ

উত্তর দিনাজপুর, ২৫ সেপ্টেম্বরঃ লাগাতার বৃষ্টির কারণে জলমগ্ন উত্তরদিনাজপুর জেলার বিভিন্ন এলাকা। জেলার ইসলামপুর মহকুমার চোপড়া ব্লকের মাঝালি অঞ্চলের হাঁসখালি গ্রামে, জলের স্রোতের কারণে নদী গর্ভে চলে গিয়েছে চাষের জমি, রাস্তা।

 ফলে ক্ষতির মুখে চা, আনারস, ধান চাষীরা। আতঙ্কিত এলাকা বাসী। সমস্যায় পড়েছেন ৮ টি থেকে ১০ টি গ্রামের প্রায় হাজার দশেক মানুষ।

গ্রামবাসীদের অভিযোগ, গ্রামের জমির পাশ দিয়ে একটি বড় নালা বয়ে গিয়েছে বহুদিন ধরে। সেই নালা দিয়ে বৃষ্টির জল গ্রামের পাশেই নদীতে গিয়ে পরে। লাগাতার বৃষ্টির কারণে প্রচুর পরিমানে জল বয়ে যেতে যেতে, এখনও পর্যন্ত প্রায় ১০ থেকে ১২ বিঘা চাষের জমি ও চলাচলের রাস্তা চলে গিয়েছে নদী গর্ভে।

 ফলে ক্ষতির মুখে পরেছেন চা, আনারস, ধান চাষীরা। যেভাবে ভাঙন শুরু হয়েছে, তাতে আরও বৃষ্টি হলে এই গ্রামের পাঁচ থেকে ছয় হাজার মানুষের বাড়িও নদী গর্ভে চলে যাবে বলে আশঙ্কা করছেন এলাকাবাসীরা।

গ্রামের চাষের জমি, আনারস বাগান এবং চা বাগানের পাশাপাশি গ্রামবাসীদের যাতায়াতের প্রধান রাস্তাও আস্তে আস্তে চলে যাচ্ছে নদী বুকে। এর ফলে ৮ থেকে ১০ টি গ্রামের প্রায় হাজার দশেক মানুষ কার্যত এলাকাবন্দী হয়ে রয়েছেন।

আগামীতে কি করবেন বুঝে উঠতে পারছেন না তারা। এই ব্যাপারে প্রশাসনকে বারবার জানানো সত্ত্বেও, এখনো পর্যন্ত প্রশাসনের পক্ষ থেকে এলাকা পরিদর্শনে কেউ আসেনি বলে অভিযোগ।

অপরদিকে, এই ব্যাপারে উর্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানাবেন বলে আশ্বাস দিয়েছেন চোপড়া পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি মহম্মদ আজাহারউদ্দিন।