১ ওভারে ৬ বাউন্ডারি!কেকেআরের বোলারদের নিয়ে ছেলেখেলা করলেন পৃথ্বী শ

ইউবিজি নিউজ ডেস্ক : মোতেরায় ব্যাট হাতে আগুন জ্বালালেন পৃথ্বী শ। সেই আগুনে ছারখার কেকেআর। দিল্লিকে ৭ উইকেটে জয় এনে দিলেন তারকা। বৃহস্পতিবার আহমেদাবাদে ৪১ বলে ৮২ রানের বিস্ফোরক ইনিংস উপহার দিলেন। সেই নিজের আগুনে ইনিংসেই এক ওভারে হাঁকালেন ছয়টা বাউন্ডারি।

রান চেজ করতে নেমে পৃথ্বী শ শিভম মাভির প্রথম ওভারের ছয়টা বৈধ বলই বাউন্ডারির বাইরে পাঠান। এই কীর্তি সঙ্গেই আইপিএলে বিরল নজির গড়ে ফেললেন। দ্বিতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে এক ওভারে ছয়টা বাউন্ডারি হাঁকানোর নজির গড়লেন তিনি। এর আগে প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে এই কীর্তি রয়েছে অজিঙ্কা রাহানের।

বিস্ফোরণের শুরু শিভম মাভির প্রথম বল স্ট্রেট ড্রাইভে বাউন্ডারি পাঠানো দিয়ে। তারপর পিচড আপ বল বোলারের মাথার ওপর দিয়ে বাউন্ডারিতে পাঠান। তারপরে একে একে মিড উইকেট দিয়ে ড্রাইভ, লো ফুলটসে কভার দিয়ে বাউন্ডারি, ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্ট দিয়ে হাঁকানো- সবই রয়েছে নাটকীয় সেই প্রথম ওভারে।

ম্যাচের পরে সেরার পুরস্কার নিতে গিয়ে পৃথ্বী শ বলে দেন, “সত্যি কথা বলতে, আমার মাথায় সেই সময় কিছুই ছিল না। আমি লুজ বলের অপেক্ষা করছিলাম। শিভমের সঙ্গে বিভিন্ন বয়স ভিত্তিক টুর্নামেন্টে ৩-৪ বছর খেলেছি। ও কোথায় বল রাখবে, তা নিয়ে আন্দাজ ছিল-ই। প্রথম ৪টে বল-ই হাফভলি ছিল। তাই আমি শর্ট বলের জন্য তৈরি ছিলাম। তবে ও করেনি।”

বৃহস্পতিবার রাতের বিস্ফোরক ইনিংসের পর অস্ট্রেলীয় সফরে ব্যর্থতার কথা ফের একবার উঠল। পৃথ্বী জানিয়ে দিলেন, “আমার বাবা কঠিন সময়ে সাপোর্ট করেছিলেন। অস্ট্রেলিয়া থেকে ফেরার পর নিজের ওপর মোটেই খুশি ছিলাম না। বাবা তখন আমার স্বাভাবিক খেলার ওপর জোর দিতে বলেন। এরপর মনে মনে একটা টার্গেট সেট করে নিই। ক্রিকেটে এমন ওঠানামা চলতেই থাকে। ভবিষ্যতেও অনেক ব্যর্থতা আমার জন্য অপেক্ষা করে রয়েছে।”

ক্যাপ্টেন পন্থও দলের তারকা ব্যাটসম্যানকে নিয়ে উচ্ছ্বসিত। ম্যাচের পরেই শ-কে নিয়ে পন্থ বলে দিলেন, “ওকে স্রেফ নিজের স্বভাবিক খেলা খেলতে বলি। এমন ম্যাচে রান রেটের কথা সেভাবে চিন্তা করতে হয়না। কেবল তরুণদের উপভোগ করতে হয়। এদিন সেটাই হয়েছে।”