Ad
কলকাতা

অসুস্থ বাবার চিকিৎসার খরচ যোগাড় করতে না পেরে আত্মহত্যা করলেন ছেলে

এই বিজ্ঞাপনের পরে আরও খবর রয়েছে

UBG NEWS, ডেস্ক :করোনার আবহে মুরগির ব্যবসায় বিপুল লোকসানের ধাক্কা। তার উপর বাড়িতে বৃদ্ধ বাবার অসুস্থতা দিন দিন বাড়ছে। এমন একটা অবস্থায় টাকার অভাবে বাবার চিকিৎসার খরচ জোগাড় করতে পারছিলো না মুরগি ব্যবসায়ী ছেলে মৃন্ময় দাস। শেষে অসুস্থ বাবার চিকিৎসার খরচ যোগাড় করতে না পেরে আত্মহত্যাই করে বসলেন তিনি।

 ঘটনাটি ঘটেছে কলকাতার বেহালা এলাকার পর্ণশ্রী থানার পারুই দাস পাড়া রোডে।জানা গিয়েছে, কিছুদিন ধরেই বাবার চিকিৎসার টাকা যোগাড় করতে না পেরে মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন মৃন্ময় দাস। পেশায় তিনি মুরগি বিক্রেতা। লকডাউনের জন্য আবার মুরগির ব্যবসা ভালো করে চলছিল না। অনেক টাকা ধার হয়ে গেছিলো বাজারে। পাওনাদারেরা টাকার জন্য অশান্তি করছিল বাড়ি এসে।

Ad

বৃদ্ধ বাবাও বেশ কয়েক বছর ধরে অসুস্থ ছিল। মৃন্ময়বাবু ভেবেছিলেন বাবার একটা জমি বিক্রি করে সেই টাকা দিয়ে বাবার চিকিৎসা করবে। কিন্তু সেই জমিও আত্মসাৎ করে রেখেছে কাকা। তাই অনেকেই মনে করছেন কিছুটা বাধ্য হয়েই আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছেন তিনি। ইতিমধ্যেই ঘটনার তদন্তে নেমেছে পর্ণশ্রী থানার পুলিশ।

অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের আত্মহত্যার ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই কলকাতার পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা নিজের টুইটা বার্তায় শহরবাসীকে বলেছিলেন নিজেদের আবেগ অবসাদ চেপে না রাখতে। প্রয়োজনে ১০০ ডায়ালে ফোন করে পুলিশের সঙ্গে কথা বলতে। নিজেদের সমস্যার কথা জানাতে। তাতে পুলিশ মানুষকে সাহায্য করতে পারবে। কিন্তু সে বার্তা আদৌ হতাশায় ড্যবে থাকা মানুষগুলোর কাছে গিয়ে পৌঁছাবে কিনা তা নিয়েই খটকা থেকে যাচ্ছে। মৃন্ময়বাবুর ঘটনা সেই খটকারই একটি উদাহরণ।

আরও পড়ুন