Ad
দেশ

এক পেগ মদ নিয়ে ঘুমাতে যেতে দিন ‘‌পুরুষদের’‌, মহিলা মন্ত্রীর মন্তব্যে আলোড়ন

এই বিজ্ঞাপনের পরে আরও খবর রয়েছে

ইউবিজি নিউজ ডেস্ক : এখানের একটা বড় অংশের পুরুষ নিয়মিত মদ্যপান করেন। আর তা নিয়ে সংসারে অশান্তি এবং তা থেকে থানা–পুলিশে অভিযোগ দায়ের হয়। পুরুষদের চিন্তামুক্ত থাকতে কী মদের প্রয়োজন?‌

এই প্রশ্নই এখন ঘুরপাক খাচ্ছে ছত্তিশগড়ে। কারণ এখানকার কংগ্রেস সরকারের মহিলা মন্ত্রীর নিদান এমনই। যা নিয়ে জোর শোরগোল পড়ে গিয়েছে। কারণ ভূপেশ বাঘেল সরকারের প্রতিশ্রুতি ছিল মদ মুক্ত রাজ্য গড়ে তোলার। সেখানে তাঁরই মন্ত্রিসভার নারী ও শিশুকল্যাণ মন্ত্রী অনিলা ভেদিয়া গ্রামের মহিলাদের নিদান দেন, ‘‌পুরুষদের মাঝেমধ্যে এক পেগ(মদ) নিয়ে ঘুমাতে যেতে দিন।’‌ এই মন্তব্যই এখন জোর চর্চার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

Ad

জানা গিয়েছে, এই রাজ্যে আবগারি থেকে আয় কমেছে। সেই আয় যাতে বাড়ে তাই এই নিদান বলে অনেকে মনে করছেন। তবে অন্য একটি অংশ বলছেন, এই গ্রামের মহিলাদের অনেকেই অভিযোগ করেছেন, স্বামী মদ খান। তাই নিয়ে সংসারে অশান্তি। মহিলারা যাতে স্বামীর এই অভ্যাস মেনে নেন তাই এমন নিদান দিয়েছেন নারীও শিশুকল্যাণ মন্ত্রী।

উল্লেখ্য, এখানের একটা বড় অংশের পুরুষ নিয়মিত মদ্যপান করেন। আর তা নিয়ে সংসারে অশান্তি এবং তা থেকে থানা–পুলিশে অভিযোগ দায়ের হয়। এমনকী গার্হস্থ্য হিংসার ঘটনা ঘটে। ভুগতে হয় মহিলাদের। এই সমস্যার সমাধান করতে তিনি পারেননি। উলটে পুরুষদের একটু–আধটু সুরা পান(মদ) করে শুয়ে পড়ুন বলে মন্তব্য করায় মহিলারা ক্ষেপে উঠেছেন।

এখনও এই পরিস্থিতির ড্যামেজ কন্ট্রোল করা যায়নি। পরিস্থিতি বেগতিক দেখে তিনি নিজেই বিষয়টি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করেন। সাফাই দিয়ে তিনি বলেন, ‘‌আমার বক্তব্যের ভুল অর্থ করা হয়েছে। এটি রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। মদ্যপানে আসক্ত পুরুষদের উদ্দেশ্যে বোঝাচ্ছিলাম, যাতে অল্প মদ্যপান করেন। বাড়ি এবং সন্তানদের জন্য মেয়েদের অনেক মানসিক চাপ নিতে হয়। আমি বলতে চাইছিলাম, মদের প্রতি আসক্তি খারাপ জিনিস। এই অভ্যাস ত্যাগ করা উচিত।’‌ কিন্তু ততক্ষণে মন্তব্য ভাইরাল হয়ে পড়েছে।

আরও পড়ুন