‘দেশের স্বাভাবিকতা নষ্ট করছে, হিংসার রাজনীতি করছে ২০১৪ সাল থেকে’, তেজস্বী সূর্যকে জবাব নুসরতের

UBG NEWS, ডেস্ক : বিজেপির নবান্ন অভিযানের দিন রাজ্যে এসে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারকে তুলোধনা করেছিলেন বিজেপি যুব মোর্চার সর্বভারতীয় সভাপতি তেজস্বী সূর্য। বলেছিলেন, ‘বাংলার রাজনৈতিক ইতিহাসে কালো দিন। গণতন্ত্রকে খুন করেছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকার।

দেশের কোথাও বাংলার মতো দুর্নীতিবাজ সরকার আর নেই।’ আর এদিনও তিনি একইভাবে আক্রমণ শানিয়েছেন এ রাজ্যের সরকারকে। তিনি বলেন, ‘আমরা নিশ্চিত করছি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই দুর্নীতিবাজ, ফ্যাসিস্ত সরকারের নির্মূল হবে সামনের নির্বাচনেই। আমি দেশের সচেতন নাগরিক যারা দেশের ও সংবিধানের মর্যাদার কথা ভাবেন, তাঁরা পশ্চিমবঙ্গের এই ফ্যাসিস্ত সরকারের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলুন।’তেজস্বীর এই মন্তব্যের পরই সময় নষ্ট করেননি তৃণমূল সাংসদ, অভিনেত্রী নুসরত জাহান।

তেজস্বীর ওই বক্তব্যকে ট্যুইট করে তিনি লেখেন, ‘আশ্চর্যজনক বক্তব্য রেখেছেন তেজস্বী সূর্য। তাকিয়ে দেখুন, কারা আসলে ফ্যাসিস্ত। আপনার যাঁরা বস, তাঁরাই দেশের স্বাভাবিকতা নষ্ট করছে। হিংসার রাজনীতি করছে সেই ২০১৪ সাল থেকে।’ অমিত শাহের আদিবাসী বাড়িতে খেতে যাওয়া প্রসঙ্গেও একইরকম আক্রমণাত্মক ছিলেন নুসরত।

তিনি বলেছিলেন, ‘আমার ফিল্মসিটির শুটিংয়ের সেটআপের থেকেও দারুন ব্যবস্থা। উনি ভাত খেলেন, ডাল, পটল ভাজা খেলেন। ইন্টারভিউ দিলেন আর চলে গেলেন।’এর আগেও বিজেপি যুব মোর্চার সর্বভারতীয় সভাপতিতেজস্বী সূর্য সুর চড়িয়ে বলেছিলেন, ‘দেশের কোথাও বাংলার মতো দুর্নীতিবাজ সরকার আর নেই। সিন্ডিকেট ও কাটমানির সরকার চলছে। সরকারের বিরুদ্ধে বললেই হামলা হচ্ছে। একের পর এক বিজেপি কর্মী বাংলায় খুন হচ্ছেন। আমাদের হাজারের বেশি কর্মী জখম হয়েছেন। গণতন্ত্রকে খুন করেছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকার।’

সেই সময়ও তেজস্বীকে জবাব দিয়েছিলেন নুসরত। পিছিয়ে রইলেন না এবারও।অমিত শাহের সফর নিয়েও কটাক্ষ করে বসিরহাটের সাংসদ বলেছিলেন, ‘অতিথিকে বাংলার মানুষ ভালবাসে, তাই এইসব মানুষকে বাংলায় আসতে দেওয়া হচ্ছে। তা না হলে কখনই এঁদের বাংলায় আসতে দেওয়া হত না। তবে উনি (অমিত শাহ) আসতেই পারেন বাংলায়। তবে ওঁনার দলকে কখনই বাংলায় আসতে দেওয়া হবে না।’ এদিনও সেই সুরই বজায় রাখলেন নুসরত।