একদিনে মৃত্যু ৬ হাজার ১৪৮ জনের, ফের চোখ রাঙাচ্ছে করোনা

নয়াদিল্লি ১০ জুন: ফের ঊর্ধ্বমুখী দেশের করনা সংক্রমণের গ্রাফ গত কয়েকদিনে আশার আলো দেখিয়েছিল করোনা গ্রাফ। প্রতিদিনই কমছিল সংক্রমণ। মৃত্যু হার না কোমলেও মোটামুটি সাড়ে চার হাজারের নিচেই ওঠানামা করছিল সংখ্যা। কিন্তু বৃহস্পতিবার এক ধাক্কায় সংখ্যা অনেকটাই বেড়ে গেল। করোনার কোপে একদিনে ৬,১৪৮ জন এর মৃত্যু হল দেশে।

বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান বুলেটিন অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় গোটা দেশে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৯৪ হাজার ৫২ জন। বুধবার আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৯২ হাজার ৫৯৬ জন। সামান্য হলেও এদিন আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে। এর পাশাপাশি বেড়েছে মৃত্যুর সংখ্যাও। বুধবারের হিসাব বলছে গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২ হাজার ২১৯ জনের মৃত্যু হয়েছিল। আর বৃহস্পতিবারের রিপোর্ট পাওয়ার পর ফের বৃদ্ধি পেয়েছে করোনার ভয়াবহতা। এদিন দেশে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৬ হাজার ১৪৮ জনের। এখনও পর্যন্ত এটিই দেশের করোনার আক্রান্ত হয়ে সর্বোচ্চ মৃত্যু। একদিকে যখন মৃত্যু আশঙ্কা জাগাচ্ছে, তখন কমেছে সুস্থতার সংখ্য়াও। বুধবার ১ লক্ষ ৬২ হাজার ৬৬৪ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গিয়েছিলেন। আর বৃহস্পতিবার সুস্থ হয়েছেন ১ লক্ষ ৫১ হাজার ৩৬৭ জন। সুস্থতার সংখ্যাও গতকালের তুলনায় অনেকটাই কমেছে। তবে দৈনিক আক্রান্তের চেয়ে সুস্থতার হার গত কয়েকদিনের মতো এদিনও বেশি।

 তবে স্বাস্থ্যমন্ত্রকের জন্য বড় স্বস্তির জায়গা হল অ্যাকটিভ কেস এই মুহূর্তে দেশে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২ কোটি ৯১ লক্ষ ৮৩ হাজার ১২১ জন। তবে মঙ্গলবারের থেকে বুধবার দেশে অ্যাক্টিভ করোনা রোগীর সংখ্যা বাড়লেও এদিন তা ফের কমেছে। বুধবার দেশে অ্য়াক্টিভ করোনা রোগীর সংখ্য়া ছিল ১২ লক্ষ ৩১ হাজার ৪১৫ জন। আর বৃহস্পতিবার সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা ১১ হাজার ৯৫২ জন। এখনও পর্যন্ত দেশে মোট সুস্থ হয়েছেন ২ কোটি ৭৬ লক্ষ ৫৫ হাজার ৪৯৩ জন। দেশের করোনায় আক্রান্ত হয়ে মোট মৃত্যু হয়েছে ৩ লক্ষ ৫৯ হাজার ৬৭৬ জনের। মোট ২৩ কোটি ৯০ লক্ষ ৫৮ হাজার ৩৬০ জনকে এখনও পর্যন্ত ভ্যাকসিন দেওয়া সম্ভব হয়েছে।