প্রথমে টুইটারের ‘টাটা’ এবার ইনস্টাগ্রাম! কঙ্গনার রানী গিরিতে নারাজ সোশ্যাল সাইট

ইউবিজি নিউজ ডেস্ক : টুইটার তাঁকে ‘টাটা’ নিয়েছেন। সাসপেন্ড করা হয়েছে তাঁর টুইটার হ্যান্ডেল। অভিনেত্রী কঙ্গনা রাণাওয়াত এখন ঘাঁটি করেছেন ইনস্টায়। কিন্তু তাতেও শান্তি নেই অভিনেত্রী। ইস্টা কর্তৃপক্ষ ডিলিট করে দিল কঙ্গনার পোস্ট।

করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর অভিনেত্রী কঙ্গনা ইনস্টাতে নিজের ধ্যানমগ্ন এক ছবি পোস্ট করে ক্যাপশনে লেখেন, ‘গত কয়েকদিন ধরে আমার চোখ সামান্য জ্বলছিল, ক্লান্ত এবং দুর্বল বোধ করছিলাম। হিমাচলে যাওয়ার ইচ্ছে ছিল,

তাই গতকাল আমার টেস্ট করালাম এবং আজ রেজাল্ট এল আমি কোভিড পজিটিভ। আমি নিজেকে আলাদা করে রেখেছি, আমার কোনও ধারণা ছিল না যে এই ভাইরাস আমার শরীরে পার্টি করছে, এখন আমি জানি যে আমি এটিকে ধ্বংস করব। মনে রাখবেন কোন শক্তি যেন আপনাকে পরাভূত করতে না পারে।’

তিনি আরও লেখেন, ‘আপনি যদি ভয় পান তবে এটি আপনাকে আরও ভয় দেখাবে। আসুন এই কোভিড-১৯কে আমরা ধ্বংস করি এটি একটি ছোট টাইম ফ্লু ছাড়া আর কিছুই নয় যা খুব বেশি চাপ ফেলছে এবং এখন কিছুজনকে পাগল করছে। হর হর মহাদেব।’

পোস্টটি করার পরই কোভিডকে একটি ‘ছোট টাইম ফ্লু’ বলে তাঁর মন্তব্যটি নেটিজেনদের প্রতিক্রিয়া মুখে পড়ে কারণ দেশে প্রায় ৩ লক্ষ মানুষ তাঁদের জীবন হারিয়েছে এবং কঙ্গনার ক্যাপশনটি মানুষের কাছে অত্যন্ত সংবেদনশীল ছিল। এবং এ কারণে, ইনস্টাগ্রাম ভুল তথ্য দেওয়ার কারণে কঙ্গনার পোস্টটি ডিলিট করে দিয়েছে বলে খবর।

কিন্তু তারপরেও থামেননি কঙ্গনা। নিজের ইনস্টা স্টোরিতে গোটা ঘটনাটির প্রতিক্রিয়া স্বরূপ লেখেন, ‘ইনস্টাগ্রাম আমার পোস্টটি ডিলিট করেছে কারণ আমি কোভিডকে ধ্বংস করার হুমকি দিই, কিন্তু কিছু মানুষ আহত হয়েছিলেন। আমি শুনেছিলাম টুইটারে সন্ত্রাসবাদী এবং কমিউনিস্ট সহানুভূতিশীল মানুষ আছে জানতাম কিন্তু এ তো দুর্দান্ত কোভিড ফ্যান ক্লাব… ইন্সটাতে দু’দিন হল আমি এসেছি কিন্তু মনে হয় না এক সপ্তাহের বেশি এখানে থাকতে পারব।’