BIG BREAKING : রাজীব কুমারকে গ্রেফতার করতে পারবে সিবিআই, রক্ষাকবচ উঠতেই রাজীব কুমারের বাড়িতে সিবিআই হানা

ওয়েব ডেস্কঃ রাজীব কুমারকে চাইলে গ্রেফতার করতে পারবে সিবিআই। আজ জানিয়ে দিল কলকাতা হাইকোর্ট। অর্থাৎ রাজীব কুমারকে গ্রেফতার করা যাবে না , এই মর্মে আদালত তার নির্দেশ প্রত্যাহার করে নিল। এই রায়ের পরই সিবিআই সূত্রের ইঙ্গিত, এখন যে কোনও মুহূর্তে তারা গ্রেফতার করতে পারেন আইপিএস অফিসার রাজীব কুমারকে।

দুপুর তিনটে নাগাদ কলকাতা হাইকোর্ট রায় দিয়ে জানিয়ে দেয়, কলকাতার প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমাররের আর আইনি রক্ষাকবচ আর থাকছে না। আদালত এ-ও বলে দেয়, তদন্তের স্বার্থে চাইলে রাজীবকে গ্রেফতার করতে পারে তদন্ত এজেন্সি। বিকেল পাঁচটা বাজার আগেই ৩৪ নম্বর পার্ক স্ট্রিটে রাজীবের বাড়িতে পৌঁছে গেল সিবিআই টিম। দু’জন আধিকারিক ঢোকেন তাঁর বাড়িতে।

তাঁর বিরুদ্ধে মুল অভিযোগ, সারদা মামলার তদন্তে গঠিত সিট-এর প্রধান ছিলেন তিনি। সেই সময় সমস্ত নথিপত্র তিনিই হস্তগত করেছিলেন। কিন্তু অভিযুক্তদের বাঁচাতে রাজীব কুমার সেই সব তথ্য গোপন করে যাচ্ছেন। কোনও কোনও তথ্য আবার বিকৃত করা হয়েছে। বারবার সহযোগিতা চাওয়া সত্বেও রাজীব কুমার চূড়ান্ত অসহযোগিতা করছেন, অভিযোগ সিবিআই-এর। এই যুক্তি দেখিয়ে তারা রাজীব কুমারকে গ্রেফতার করে নিজেদের ফেফাজতে নিয়েই জেরা করতে চায়।

রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে সিবিআই সুপ্রিম কোর্টেও একই অভিযোগ জানিয়েছে। বারবার ডাকা সত্বেও এড়িয়ে গেছেন রাজীব কুমার। শেষপর্য্ন্ত তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য কলকাতায় তার সরকারি বাসভবনে যায় সিবিআই গোয়েন্দারা। কিন্তু কলকাতা পুলিশ তাদের হেনস্থা করে এমনকি থানায় তুলে নিয়ে যায়। রাজীব কুমারকে হেনস্থা করা হচ্ছে এই অভিযোগ তুলে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি রাস্তায় নেমে ধর্না বিক্ষোভ শুরু করেন।

এরপরই সুপ্রিম কোর্টে যায় সিবিআই। তাদের হস্তক্ষেপেই রাজীব কুমারকে শিলংয়ের সিবিআই দফতরে হাজিরা দিতে হয়। কিন্তু সুপ্রিম কোর্ট বলে দেয়, জেরা করতে পারবে কিন্তু রাজীবকে গ্রেফতার করতে পারবে না সিবিআই। কিন্তু সিবিআই তাকে জেরা করে আদালতকে জানায়, রাজীব কুমারকে গ্রেফতার না করলে সত্য বার করা সম্ভব নয়। তখন সুপ্রিম কোর্ট সিবিআইকে এব্যাপারে কলকাতা হাইকোর্টে মামলা করতে বলে। আজ সেই মামলার নিষ্পত্তি হলো।