করোনা সংক্রমণের সাথে সাথে দেশে বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যাও 

    ইউবিজি নিউজ ডেস্ক : দৈনিক টিকাকরণ বাড়ানো হলেও কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান অনুসারে গত ২৪ ঘন্টায় ভারতে সংক্রমিত হয়েছেন ৪৩ হাজার ৮৪৬ জন। যা আগের দিনের তুলনায় প্রায় ৪ হাজার বেশি। একদিনে করোনা বৃদ্ধির এই হার গত নভেম্বরের পর সবচেয়ে বেশি।

    কিন্তু চিন্তা বাড়াচ্ছে মৃত্যুর হার। করোনা হানায় গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় মৃত্যু হয়েছে ১৯৭ জনের। মোট মৃত্যু হয়েছে মোট ১ লক্ষ ৫৯ হাজার ৭৫৫ জনের। ভয়াবহ আকার ধারণ করলো দেশের করোনা সংক্রমণের পরিস্থিতি। লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে দেশের করোনাগ্রাফ।

    নতুন কোভিড -১৯ এর মৃত্যুর মধ্যে ছয়টি রাজ্যে মৃত্যুর হার ৮৬.৮ শতাংশ। রবিবার মহারাষ্ট্রে করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৯২ জনের। এর পরে রয়েছে পাঞ্জাব। সেখানে দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা ৩৮ এবং কেরালায় ১৫ জনের মৃত্যু হয়েছে।

    রাজ্য জুড়ে করোনার সংক্রমণ লাফিয়ে লাফিয়ে ছড়াচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তের সংখ্যা ছাপিয়ে গেল ৩৭০। গত ৩ দিন ধরেই করোনায় দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা ঊর্ধ্বমুখী। সব মিলিয়ে এখনও পর্যন্ত ৫ লক্ষ ৮০ হাজার ২০৯ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য দফতর।

    গত ২৪ ঘন্টায় মহারাষ্ট্রে আক্রান্তের হার ২৭ হাজার ১২৬ জন। পাঞ্জাবে ২ হাজার ৫৭৮ জন। করোনা রোধে মধ্যপ্রদেশের ভূপালে প্রতি রবিবার ইতিমধ্যেই লকডাউন জারি করা হয়েছে। এ শহরে এখনও পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে ৩ হাজার ১১২ জনের মৃত্যু হয়েছে।

    বিভিন্ন রাজ্যের একাধিক শহরে নাইট কার্ফু জারি, নিয়ন্ত্রণবিধি লাগু হয়েছে।এহেন পরিস্থিতিতে মহারাষ্ট্র থেকে আসা-যাওয়া করা বাস সম্পূর্ণ বন্ধ করে দিয়েছে মধ্যপ্রদেশ। ভোপাল, ইন্দৌর ও জব্বলপুরে আগামিকাল অর্থাত্‍ ২১ মার্চ লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে।