শীতলকুচিতে বিজেপির পার্টি অফিস ভাঙচুরের অভিযোগ উঠল তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে

শীতলকুচি, ৯ জুনঃ বিজেপির কার্যালয়ে ভাঙচুর করে দলীয় পতাকা লাগিয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে।

আজ শীতলখুচি থানার ভাঐরথানা এলাকায় ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক উত্তেজনা ছড়ায়। অভিযোগ দলীয় কার্যালয়ে ভাংচুরের সময় বিজেপি কর্মী সমর্থকদের বেশ কিছু বাইকও ভাঙচুর করা হয়। এমনকি ভাঙচুর করার পর তৃণমূলের পতাকা লাগিয়ে দেয় ভাঙ্গা বিজেপির কার্যালয়ে।এই ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।

খবর পেয়ে বিশাল বাহিনী নিয়ে ঘটনাস্থলে আসে শীতলকুচি থানার পুলিশ। এই ঘটনায় বিজেপির পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ করা হবে বলে জানিয়েছেন বিজেপির স্থানীয় মন্ডল সভাপতি মহেন্দ্র নাথ বর্মন।তিনি বলেন, “আমরা এলাকায় শান্তি চাই। কিন্তু এই কেন্দ্রে তৃণমূল প্রার্থী পরাজিত হওয়ায় ওরা সন্ত্রাস করার চেষ্টা করছে। কিন্তু এভাবে সন্ত্রাস করলে মানুষ কিন্তু প্রতিবাদ করতে পথে নামতে বাধ্য হবে।পুলিশকে জানিয়েছি পুলিশ ব্যবস্থা না নিলে আমরাই প্রতিরোধ গড়ে তুলবো।”

যদিও তৃণমূলে কংগ্রেসের পক্ষ থেকে অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে। তৃণমূল কংগ্রেসের ভাওইর থানা অঞ্চল কমিটির কনভেনার তথা গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান চন্দন প্রামানিক বলেন, “সমস্ত বিষয় উড়িয়ে দিয়ে অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন। বিজেপির দলীয় কার্যালয় ভাঙ্গার পেছনে তৃণমূলের কোন হাত নেই। মন্দিরের জায়গায় বিজেপি দলীয় কার্যালয় তৈরি করেছে। তাই সাধারন মানুষ ভাঙচুর করছে।”