কোচবিহার

ভারতের রাষ্ট্রপতির তরফ থেকে ডঃ ধর্মনারায়ণ বর্মার তুফানগঞ্জের বাসভবনে গিয়ে তাঁর হাতে পদ্মশ্রী সম্মান তুলে দিলেন কোচবিহারের জেলা শাসক পবন কাদিয়ান

তুফানগঞ্জ: অবশেষে পদ্মশ্রী হাতে পেলেন কামতাপুরী ভাষার অন্যতম প্রধান পথিকৃৎ ড. ধর্ম নারায়ণ বর্মা। বুধবার দুপুরে তার বাড়িতে গিয়ে পদ্মশ্রী তুলে দেন কোচবিহারে জেলাশাসক পবন কাদিয়ান।

দীর্ঘদিন ধরেই অসুস্থতায় ভুগছেন ড. ধর্ম নারায়ণ বর্মা। এর ফলে তিনি দিল্লিতে গিয়ে পদ্মশ্রী নিতে পারবেন না বলে তার পরিবারের তরফ থেকে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের কাছে জানানো হয়েছিল। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক পরিবারের আবেদনে সাড়া দিয়ে জেলাশাসকের মাধ্যমে ড. ধর্ম নারায়ণ বর্মার হাতে পদ্মশ্রী সম্মান তুলে দেন। যেমন জীবিত থাকলে পদ্মশ্রী প্রাপক ছাড়া অন্য কাউকে দেওয়ার নিয়ম নেই তেমনি বাড়িতে এসে পদ্মশ্রী তুলে দেওয়া কার্যত নজিরবিহীন।

এদিন সেখানে জেলাশাসক পৌঁছে গেলে তার সাথে উপস্থিত ছিলেন তুফানগঞ্জের মহকুমা শাসক রোহণ লক্ষীকান্ত যোশি সহ আরো অন্যান্যরা। বক্সীরহাট থানার অন্তর্গত হরিপুর গ্রামের বাসিন্দা ড. ধর্ম নারায়ণ বর্মা। বর্তমানে তার বয়স ৮৬ বছর। এদিন দুপুরে পদ্মশ্রী পুরস্কার পাওয়ায় গোটা কোচবিহার জেলা সহ উত্তরবঙ্গ জুড়ে খুশির আমেজ।

প্রবীণ ড. ধর্ম নারায়ণ বর্মা কামতাপুরী ভাষা স্বীকৃতির দাবিতে বারংবার আন্দোলন করে এসেছিলেন। কেন এই ভাষা আলাদা মর্যাদা পাওয়া দরকার সেই নিয়ে যুক্তি দিয়ে সকল কে বুঝিয়েছিলেন। ভাষাবিদদের কাছেও তিনি তার নিজের বক্তব্য সওয়াল করেছেন। তিনি ছিলেন তুফানগঞ্জ এন এন এম স্কুলের প্রাক্তন শিক্ষক। দলমত নির্বিশেষে সকলেই দাবি করে এসেছিলেন ড. ধর্ম নারায়ণ বর্মা কে সম্মান দেওয়ার জন্য। অবশেষে তাকে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে পদ্মশ্রী সম্মানে ভূষিত করা হয়েছে। এদিন তার হাতে সম্মাননা তুলে দেওয়া হল জেলাশাসকের হাত দিয়ে।

Ad

[ লেটেস্ট খবর এবং আপডেট জানার জন্য ফলো করুন ইউবিজি নিউজ ফেসবুক পেজ । ব্রেকিং নিউজ এবং ডেইলি খবরের আপডেটে পেতে যুক্ত হোন হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে  ]