শীতলকুচিতে উন্নয়নমূলক কাজের অগ্রগতি খতিয়ে দেখতে হাজির উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষ

শীতলকুচি: নাটাবাড়ি এবং কোচবিহার দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্রের পর এবার শীতলকুচি বিধানসভা কেন্দ্রে উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন দপ্তরের অর্থানুকূল্যে চলতে থাকা বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজের খতিয়ান দেখতে উপস্থিত হলেন উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষ।

দীর্ঘ বেশ কয়েক বছর থেকেই উন্নয়ন দপ্তরের কাজের গতি এবং মান নিয়ে কোচবিহার জেলায় একাধিকবার প্রশ্ন তুলেছেন বিরোধীরা, হয়তো সেই কারণেই এলাকার কাজ পরিদর্শনে নিজেই তৎপরতার সঙ্গে উপস্থিত হচ্ছেন মন্ত্রী।

বৃহস্পতিবার শীতলকুচি বিধানসভা এলাকার একটি নবনির্মিত ব্রিজ এবং অত্যাধুনিক অডিটোরিয়ামের কাজ পরিদর্শন করেন তিনি। আগামী ডিসেম্বর মাসের মধ্যে সমস্ত কাজ শেষ করার নির্দেশ দেন রবীন্দ্রনাথ ঘোষ।

তিনি বলেন, করোনাভাইরাস অতি মারি পরিস্থিতিতে গোটা রাজ্য জুড়ে উন্নয়নমূলক কাজে শিথিলতা এসেছে, আমরা উন্নয়নমূলক কাজের থেকে মানুষকে বেশি গুরুত্ব দিয়ে ছি। আগামী তিন মাসের মধ্যে সমস্ত উন্নয়নমূলক কাজ সম্পূর্ণ হয়ে যাবে জেলাজুড়ে।

একইসাথে এদিন শীতলকুচি এলাকায় তৃণমূল কর্মী রবিউলের বাড়িতে পৌঁছান মন্ত্রী। দুঃখ করে বলেন সমস্ত কিছু বিক্রি করে দিয়ে এই ছেলেটি টোটো কিনে ছিল। তার উপরে ভিত্তি করে গোটা সংসার চলত।বৃদ্ধ মা বাবার সাথে তার একটি ১ বছরের সন্তান ও স্ত্রী রয়েছে।যারা এই নৃশংস হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত তাদের সকলের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি এবং ফাঁসি হওয়া প্রয়োজন।

তিনি আরো বলেন, ইতিমধ্যেই পুলিশের সাথে আলোচনা হয়েছে। দ্রুত আততায়ীদের গ্রেপ্তারের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।এদিন তাদের বাড়িতে পরিবারের মানুষদের সহানুভূতিতে উপস্থিত ছিলেন এলাকার বিধায়ক হিতেন বর্মন।