Ad
কোচবিহার

প্রধানের বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রস্তাব নিয়ে এলেও জেলা তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি গিরীন্দ্রনাথ বর্মনের নির্দেশকে মান্যতা দিয়ে অনাস্থা প্রস্তাব প্রত্যাহার করে নিলেন কোচবিহারের তুফানগঞ্জ ২ নম্বর ব্লকের বারোকোদালি- ১ গ্রাম পঞ্চায়েতের তৃণমূলের পাঁচজন সদস্য

এই বিজ্ঞাপনের পরে আরও খবর রয়েছে

UBG NEWS, তুফানগঞ্জ: প্রধানের বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রস্তাব নিয়ে এলেও, দলের নির্দেশকে মান্যতা দিয়ে অনাস্থা প্রস্তাব প্রত্যাহার করে নিলেন কোচবিহারের তুফানগঞ্জ ২ নম্বর ব্লকের বারোকোদালি- ১ গ্রাম পঞ্চায়েতের তৃণমূলের পাঁচজন সদস্য।

শুক্রবার তুফানগঞ্জ ২ নম্বর ব্লকের বিডিওর কাছে অনাস্থা প্রস্তাব প্রত্যাহারের চিঠি তুলে দেন পাঁচজন গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্য। বারোকোদালি-১ গ্রাম পঞ্চায়েতের সবগুলি সদস্য তৃণমূল কংগ্রেস দলের। কিছুদিন আগে ১৪ সদস্য বিশিষ্ট বারোকোদালি-১ গ্রাম পঞ্চায়েতে তৃণমূলের ৮ জন সদস্য তৃণমূলের গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধানের বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রস্তাব নিয়ে আসেন। তাদের অভিযোগ ছিল প্রধান মনোরম বর্মন পঞ্চায়েতের নিয়ম-নীতি মেনে কাজ করছেন না।

Ad

জেলা তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি গিরীন্দ্র চন্দ্র বর্মন সভাপতির দায়িত্ব পেয়ে ঘোষণা করেন তৃণমূল পরিচালিত কোন গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধানের বিরুদ্ধে কোন তৃণমূল গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্য অনাস্থা প্রস্তাব আনতে পারবেন না। যদি কোন প্রধান দুর্নীতিগ্রস্ত হন, তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে দল।

জেলা তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি গিরীন্দ্রনাথ বর্মনের এই নির্দেশকে মান্যতা দিয়ে এদিন পাঁচজন গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্য তাদের অনাস্থা প্রস্তাব প্রত্যাহারের কথা জানিয়ে বিডিও প্রসেনজিৎ কুন্ডুর হাতে চিঠি দিয়েছেন। ফলে গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধান মনোরমা বর্মনের প্রধান পদের সংকট কেটে গিয়েছে এমনটাই মনে করছেন রাজনৈতিক মহল।

এ বিষয়ে তুফানগঞ্জ 2 নম্বর ব্লকের বিডিও প্রসেনজিত কুন্ডু জানান, বারোকোদালি-১ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের পাঁচ জন সদস্যের চিঠি হাতে এসেছে। বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হবে।

আরও পড়ুন