কোচবিহার জেলায় নির্বাচন-পরবর্তী সন্ত্রাসের পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে হাজির হলেন জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের দল

ইউবিজি নিউজ, কোচবিহারঃ ভোট পরবর্তী হিংসা সরেজমিনে খতিয়ে দেখতে কোচবিহারে এসে উপস্থিত হল কেন্দ্রীয় মানবাধিকার কমিশনের ৬ প্রতিনিধি দল।

এদিন তারা আদালতের নির্দেশে বিকেলে কোচবিহারের সার্কিট হাউজে এসে উপস্থিত হন। জানা গেছে, ওই প্রতিনিধি দল কোচবিহার জেলায় ৫ দিন থাকবে। তারা জেলার বিভিন্ন মহকুমা ভোট পরবর্তী হিংসা হয়েছে এবং যারা ঘর ছাড়া হয়েছে সেই এলাকা গুলি সরজমিনে খতিয়ে দেখবে। এবং আগামী ৩০ জুনের মধ্যে বিস্তারিত রিপোর্ট আদালতে জমা দেবে এই বিশেষ কমিটি।

এদিন, জাতীয় মানবাধিকার কমিশন -এর সদস্য রাজীব জৈন, কুলবির সিং, লাল বাহাদুর, কুলয়ান্ত সিং-সহ আটজন বাগডোগরা বিমানবন্দরে আসেন। সেখান থেকে ওই দলটি কোচবিহারের উদ্দেশে রওনা দেয়। আজ তারা বিকেলে দিকে কোচবিহার জেলার সার্কিট হাউজে এসে উপস্থিত হয়।

জানা গেছে, বিজেপি কর্মীদের উপর হামলা করার পাশাপাশি শাসক শিবিরের লাগামছাড়া সন্ত্রাসের অভিযোগ তুলেছে পদ্ম শিবির। ঘন ঘন উত্তরবঙ্গে তথা কোচবিহারে পাড়ি দিয়েছেন বিজেপি নেতারা। এই নিয়ে বাংলায় ভোট পরবর্তী সন্ত্রাস নিয়ে বরাবরই তৃনমূল-বিজেপি তরজা তুঙ্গে।

সেই সংঘাত এতটাই সুদূরপ্রসারী যে জল গড়িয়েছে আদালত পর্যন্ত। ভোট পরবর্তী সন্ত্রাস মামলায় সোমবারই কলকাতা হাইকোর্টে ধাক্কা খেয়েছে রাজ্য সরকার। জাতীয় মানবাধিকার কমিশনকে দিয়ে অনুসন্ধানের নির্দেশ পুনর্বিবেচনার আর্জি খারিজ করে দিয়েছে হাইকোর্টের বৃহত্তর বেঞ্চ।

বৃহস্পতিবার, আদালতের নির্দেশে বিকেলে কোচবিহারে এসে পৌঁছল জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের ৬ সদস্যের প্রতিনিধি দল।