ads

মিমি-নুসরত এর চরিত্র নিয়ে কটাক্ষ, বিতর্কে জড়ালেন দিলীপ ঘোষ | UBG NEWS

UBG NEWS, ওয়েব ডেস্ক : লোকসভা নিবার্চনে প্রার্থীতালিকা প্রকাশ হতে না হতেই কটাক্ষ ও সোশ্যাল মিডিয়ায় নোংরামির মুখে পরেছেন দুই তৃণমূল প্রার্থী মিমি চক্রবর্তী ও নুসরত জাহান। এবার দুই নায়িকাকে কটাক্ষ করলেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষও।

যাদবপুর লোকসভা কেন্দ্র থেকে এবারে তৃণমূলের থেকে টিকিট পেয়েছেন মিমি চক্রবর্তী। অন্যদিকে বসিরহাট লোকসভা কেন্দ্রে তৃণমূলের তরফ থেকে প্রার্থী হচ্ছেন নুসরত জাহান। সব সমালোচনার মাঝেই এবার তাদের সামাজিক জ্ঞান নিয়ে প্রশ্ন তুলে দিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

নুসরত জাহান ও মিমি চক্রবর্তীকে প্রার্থী করা নিয়ে এবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে নিশানা করলেন দিলীপ ঘোষ। শুক্রবার রাজ্য বিজেপি দফতরে এক সাংবাদিক বৈঠকে এই প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘‘তৃণমূলের লোকেরাই চমকে গিয়েছেন। কোথায় সুগত বসু, আর কোথায় মিমি! কোথায় ইদ্রিস আলি, আর কোথায় নুসরত জাহান! খুবই চিন্তার বিষয়”। এরপরেই মিমি চক্রবর্তী ও নুসরত জাহান এর চরিত্র নিয়েও কটাক্ষ করেন দিলিপ ঘোষ।

দিলীপ ঘোষ আরও বলেন, “ভগবান না করুক, ওঁরা যদি জিতে যান, ওঁরা বাংলার হয়ে সংসদে প্রতিনিধিত্ব করবেন! কী অভিজ্ঞতা রয়েছেন ওঁদের? কী দিয়েছেন ওঁরা?’’ এরপরই মমতাকে বিঁধে বিজেপির রাজ্য সভাপতি বলেন, ‘‘মমতার আত্মবিশ্বাস এতটা নষ্ট হয়ে গিয়েছে যে, দলের পুরনো সাথী, সৈনিকদের বিশ্বাস করতে পারছেন না? এটাই তৃণমূলের বর্তমান অবস্থা’’।


এরপরেই দিলীপবাবু ছুঁড়ে দিলেন সেই মারাত্মক প্রশ্ন, “সমাজের কি জানে মিমি ও নুসরত”? আর দিলীপের মন্তব্যের পর ফের একবার দুই নায়িকার দিকে সোশ্যাল মিডিয়ায় তীর ছুঁড়তে শুরু করে দিয়েছেন বিজেপি কর্মী সমর্থকরা। অপরদিকে দিলীপ ঘোষ এর এই মন্তব্যের জেরে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে বিভিন্ন মহলে।

তৃণমূল সূত্রে খবর, ইদ্রিশ আলির জনপ্রিয়তা ও জেতার বিষয় নিয়ে কিছুটা সন্দিহান ছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর সেকারণেই পারফরম্যান্স এর কারণ দেখিয়ে তাঁকে বাদ দেন মমতা, এমনটাই জানা গেছে। সেখানে তারকা চমক দিতে নুসরত জাহানকে প্রার্থী করলেন দলনেত্রী।

এছাড়াও যাদবপুর লোকসভা কেন্দ্র থেকে সোমনাথ চট্টোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে প্রথম জিতেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। যাদবপুর লোকসভা কেন্দ্রে গতবারের প্রার্থী ছিলেন সুগত বসু। পেশাগত ব্যস্ততার কারণেই তিনি এবার দাঁড়াতে পারছেন না বলে জানালেন মুখ্যমন্ত্রী। আর সেখানেই প্রার্থী হলেন মিমি।

এবারের লোকসভা নির্বাচনে টলিউডের দুই তরুণ মুখ নুসরত জাহান ও মিমি চক্রবর্তীকে প্রার্থী করে চমক দিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বিশেষত, যাদবপুরের মতো রাজনৈতিক দিক থেকে গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্রে মিমির মতো রাজনীতিতে একেবারে নতুন ও অনভিজ্ঞ মুখকে প্রার্থী করা নিয়ে জোর চর্চা চলছে রাজ্য রাজনীতিতে।

মিমি-নুসরতকে প্রার্থী করা নিয়ে নেট দুনিয়াও সরগরম। ইতিমধ্যে টলিউডের দুই নায়িকাকে নিয়ে মিম ছড়িয়েছে সোশ্যাল দুনিয়ায়। অনেক সময়ই সেটা শালীনতার সীমা ছাড়িয়ে যাচ্ছে।

দুই নায়িকার অশ্লীল ছবি নিয়ে হস্তক্ষেপ করেছে নির্বাচন কমিশনও। কড়া শাস্তির কথা জানিয়েছে কমিশন। এবার সেই সমালোচনায় এবার নেমে পরলেন দিলীপ ঘোষও।

Post a Comment