ads

নিশীথের হলফনামায় উঠে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য, মামলা ১১, প্রায় কোটি টাকার সম্পত্তি নিশীথের | UBG NEWS

UBG NEWS, কোচবিহার : নিশীথের পেশ করা হলফ নামা নিয়ে উঠে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য। প্রকাশ্যে আসলো চুরি-ডাকাতি, আগ্নেয়াস্ত্র সহ ১১ টি মামলায় জড়িত থাকার অভিযোগ।

নিশীথ প্রামানিকের হলফ নামা ঘোষণা করা নিয়ে উৎসাহ ছিল অনেকেরই। সোমবার বিজেপি পার্টি অফিস থেকে বিশাল মিছিল নিয়ে এসে জেলা শাসকের দফতরে হলফনামা জমা দিতে যান নিশীথ। তারপর প্রকাশ্যে আসে তাঁর নামে ১১টি মামলা রয়েছে। চুরি-ডাকাতি থেকে শুরু করে আগ্নেয়াস্ত্র আইনে মামলা রয়েছে তাঁর বিরুদ্ধে।

সব মিলিয়ে তাঁর সম্পত্তির পরিমাণও এক কোটি টাকার কাছাকাছি। মাধ্যমিক পরীক্ষা দিয়েছেন নিশীথ। প্রাথমিক স্কুলে শিক্ষকতা করেন। তাঁর নিজস্ব কোন গাড়ি নেই। কোলকাতায় একটি ফ্ল্যাট রয়েছে। এরকম নানা তথ্য রয়েছে তাঁর হলফনামায়। নিশীথ অবশ্য আগেই জানিয়েছেন, তাঁর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করে মিথ্যে মামলা দেওয়া হয়েছে।

এদিন হলফনামা জমা দিয়ে বেরিয়ে এসে তিনি বলেন, “সব উল্লেখ রয়েছে হলফনামায়, সেখান থেকেই সবাই জানতে পারবেন। মিথ্যে অভিযোগ তুলে আমাকে বরাবর বদনাম করার চেষ্টা হচ্ছে।”

অন্যদিকে, আজ কোচবিহার লোকসভা কেন্দ্রের নির্বাচন আধিকারিক তথা জেলা শাসকের দফতরে বিজেপি প্রার্থী নিশীথ প্রামাণিকের বিরুদ্ধে থাকা জামিন অযোগ্য মামলা নিয়ে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ জানাবে তৃণমূল কংগ্রেস।


এই বিষয়ে তৃণমূলের কোচবিহার জেলা সভাপতি রবীন্দ্রনাথ ঘোষের দাবি, বিজেপি প্রার্থী নিশীথ প্রামাণিক তাঁর হলফনামায় ১১ টি মামলার উল্লেখ করেছেন। এরমধ্যে দুটি মামলায় এখনও পুলিশের খাতায় পলাতক দেখানো রয়েছে। তিনি উচ্চ আদালত থেকে জামিন নিয়েছেন কিনা,সেটাও উল্লেখ নেই হলফনামায়। রবি বাবুর কথায়,“যদি হলফনামায় তথ্য ঠিক মত দেওয়া না হয়,তাহলে ব্যবস্থা নিক নির্বাচন কমিশন। আর যদি জামিন নেওয়া না থাকে, তাহলে গ্রেপ্তার করা হোক তাঁকে।”

এই বিষয়ে নিশীথ প্রামানিক অবশ্য আগেই জানিয়েছেন, তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করে মিথ্যে মামলা দেওয়া হয়েছে। এখন এই সব গুলো কেই ইশু করা হচ্ছে।

বিজেপির কোচবিহার জেলা সভাপতি মালতি রাভা বলেন, “নির্বাচন কমিশনের নিয়ম মেনে সমস্ত তথ্য দেওয়া রয়েছে। যেসব মামলার কথা বলা হচ্ছে তাতে আমাদের প্রার্থী শুধুমাত্র অভিযুক্ত। প্রমানিত হয় নি। আর যারা অভিযোগ করছেন তাঁদের বিরুদ্ধেও এমন অভিযোগ রয়েছে।”

জেলা মুখ্য নির্বাচন আধিকারিক কৌশিক সাহা বলেন, কোনো প্রার্থীর বিরুদ্ধে নির্বাচন সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ আসলে অবশ্যই তা তদন্ত করে দেখা হবে।

Post a Comment

0 Comments