ads

উপত্যকায় জারি সেনা-জঙ্গি সংঘর্ষ, খতম ২ জইশ জঙ্গি | UBG NEWS


UBG NEWS, ওয়েব ডেস্ক : ভারতের আচমকা প্রত্যাঘাতের পর থেকে রীতিমতো ক্ষেপে রয়েছে পাকিস্তান। ফলে লাগাতার নিজেদের অভ্যাস মতো বারবার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করে ভারতের সীমান্তে এসে হামলা চালিয়ে যাচ্ছে। তবে ভারতীয় সেনাও চুপ করে নেই, তারাও পাল্টা জবাব দিতে পিছ পা হয় না। বুধবার সকালেই আবার একবার সেনা জঙ্গি সংঘর্ষে উত্তপ্ত হয়ে উঠল উপত্যকা। জম্মু কাশ্মীরের সোপিয়ানে এনকাউন্টার হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। ভারতীয় সেনাবাহিনী ইতিমধ্যেই ২ জইশ জঙ্গিকে ক্ষতম করেছে। তবে তল্লাশি অভিযান এবং গুলির লড়াই এখনও অবধি জারি রয়েছে।

সূত্রের খবর, নিরাপত্তারক্ষীরা গোপন সূত্রে খবর পায় যে সোপিয়ানের মিমান্দার এলাকায় কয়েকজন জঙ্গি লুকিয়ে রয়েছে। সেই মতো তল্লাশি অভিযানে নেমে পড়ে সেনাবাহিনী। তবে বাহিনীর উপস্থিতি বুঝতে পেরে তাঁদের ওপর গুলিবর্ষন করতে থাকে জঙ্গিরা। পাল্টা হামলা চালায় সেনাবাহিনী। তাঁদের ছোঁড়া গুলিতে এখনও অবধি ২ জইশ জঙ্গি খতম হয়েছে। গোটা এলাকার ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার ভোররাতে ভারতের বায়ুসেনা ১২টি মিরাজ ২০০০ নিয়ে পাক অধিকৃত কাশ্মীরে অবস্থিত তিনটি জঙ্গি শিবির গুঁড়িয়ে দেয়। ২১ মিনিটের মধ্যে বালাকোট, মুজফফরপুর, চাকোটির জঙ্গিঘাটি গুলো ধ্বংস করে দেয়। ভারতের এই এয়ার স্ট্রাইকের ফলে পাক মদতপুষ্ট ৩৫০ জঙ্গি নিহত হয়। ধ্বংস হয়ে যায় জইশ-ই-মহম্মদের হেডকোয়ার্টার। উড়ে যায় লস্কর-ই-তৈব, হিজবুল মুজাহিদিনের বেশকিছু ঘাঁটি। ভারতের বিমানহামলায় মারা যায় বেশকিছু প্রথম সারির জঙ্গি, তাদের মধ্যে রয়েছে জইশ জঙ্গি গোষ্ঠীর প্রধান মাসুদ আজহারের দাদা ইব্রাহিম, মাসুদের ভাই মৌলানা তালহা সাহিব এবং শ্যালক মৌলানা ইউসুফ আজহার।

Post a Comment

0 Comments