Ad
রাজনীতিরাজ্যরায়গঞ্জ

বিজেপি করার অপরাধে মানুষকে এরাজ্যে খুন হতে হয় এটা পৃথিবীর কোনও দেশে হয়না : সায়ন্তন বসু

এই বিজ্ঞাপনের পরে আরও খবর রয়েছে

ইউবিজি নিউজ ব্যুরো : পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে আইনশৃঙ্খলা বলে কিছু নেই, পুলিশকে দিয়ে যেভাবে বিজেপি কর্মী ও কার্যকর্তাদের খুন করা হচ্ছে তাতে বোঝা যাচ্ছে পশ্চিমবঙ্গ একটি ফ্যাসিস্ট সরকারে পরিনত হয়েছে।

 বিজেপি করার অপরাধে মানুষকে এরাজ্যে খুন হতে হয় এটা পৃথিবীর কোনও দেশে হয়না “। উত্তর দিনাজপুর জেলায় বিজেপি কর্মী অনুপ রায়ের মৃত্যুর ঘটনার প্রতিবাদে দলীয় কর্মসূচিতে যোগ দিতে এসে এমন মন্তব্য করলেন বিজেপির রাজ্য সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু।

Ad

গত বুধবার সন্ধ্যায় রায়গঞ্জ থানার পুলিশের হেফাজতে মৃত্যু হয় ইটাহার ব্লকের নন্দনগ্রামের বাসিন্দা বিজেপি কর্মী অনুপ রায়ের। রাতের অন্ধকারেই পুলিশ মৃতদেহের ময়নাতদন্ত করে জানিয়ে দেয় মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণের কারনে মৃত্যু হয়েছে অনুপ রায়ের।

কিন্তু মৃতের পরিবার থেকে শুরু করে বিজেপি নেতৃত্ব তা মানতে নারাজ। পুনরায় ময়নাতদন্তের দাবিতে আন্দোলনে নামে বিজেপি। পুলিশের বিরুদ্ধেই খুনের অভিযোগ দায়ের করে মৃত অনুপের পরিবার।

এই মৃত্যুর ঘটনা নিয়ে তীব্র আন্দোলনে নামে বিজেপি। শুক্রবার বিজেপির এই আন্দোলন কর্মসূচিতে যোগ দিতে আসেন বিজেপির রাজ্য সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু। সায়ন্তন বসু অভিযোগ করে বলেন, হেমতাবাদের বিজেপি বিধায়ক দেবেন্দ্র নাথ রায় হত্যার ঘটনা, চোপড়ায় কিশোরী খুনের ঘটনা এবং বিজেপি কর্মী অনুপ রায়ের পুলিশ হেফাজতে মৃত্যুর ঘটনা কোনটারই সঠিক তদন্ত বিচার হয়নি।

 তৃণমূল নেতা কর্মীরা খুনের ঘটনায় যুক্ত থাকলেও তাদের বিরুদ্ধে কোনও মামলা মোকদ্দমা নেই। এই রাজ্যে কোনও আইন নেই, গনতন্ত্র নেই। সায়ন্তন বাবুর অভিযোগ বিজেপি কর্মী অনুপ রায়কে বিজেপি করার অপরাধে পিটিয়ে খুন করেছে পুলিশ। সে কোনও অপরাধের সাথে যুক্ত ছিলনা।

আরও পড়ুন